fbpx
আন্তর্জাতিকআমেরিকাহেডলাইন

করোনাভাইরাসের উৎপত্তি কোথায়, ফের চিনে যেতে পারে ‘হু’-এর দল

জেনেভা, (সংবাদ সংস্থা): করোনা ভাইরাসের উৎপত্তি কোথায়? মনুষ্য সৃষ্টি না বাদুড়ের মাধ্যমেই ছড়িয়েছে এই ভাইরাস? বিশ্বজুড়ে তরজা অব্যাহত। তার মধ্যেই ফের চিনে যেতে পারে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার (হু) প্রতিনিধি দল।
মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প প্রতিদিন একবার করে এই ভাইরাস চিন তৈরি করেছে বলে দাবি করছেন। সরাসরি অভিযোগ করে বলেন, উহানের ভায়রোলজি ল্যাবেরোটরিতেই করোনাভাইরাস তৈরি করা হয়েছে। তার তথ্য আছে। অস্ট্রেলিয়া, জাপান সহ বেশ কয়েকটি দেশ চিনের কাছে ক্ষতিপূরণ দাবির কথাও তুলেছে। অন্যদিকে চিন বারবার দাবি করছে এটা তাদের তৈরি ভাইরাস নয়। পাল্টা চাপ দিতে তারাও আমেরিকার দিকে আঙুল তুলেছে।
এর মধ্যেই গত ফেব্রুয়ারি মাসে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা জানিয়ে দিয়েছিল এই ভাইরাস মনুষ্য সৃষ্ট হতে পারে না। কিন্তু তার পরেও বিতর্ক থামেনি। হু চিনকে আড়াল করার জন্য এই দাবি করছে অভিযোগ তুলে অনুদান পর্যন্ত বন্ধ করে দেয় আমেরিকা। এই পরিস্থিতিতে নতুন করে ফের একবার করোনা ভাইরাসের উৎপত্তির সন্ধান করতে চিনে আসতে চলেছে ‘হু’-এর বিশেষজ্ঞ প্রতিনিধি দল। এ প্রসঙ্গে হু-এর মহামারী বিশেষজ্ঞ মারিয়া ভ্যান কেরখোভে জানিয়েছেন, আরও একবার চিনে যাওয়ার পরিকল্পনা করা হচ্ছে।
ফেব্রুয়ারি মাসের মাঝামাঝি সময়ে হুয়ের বিশেষজ্ঞ দল গিয়েছিল চিনের উহান প্রদেশে। সেই সময়ে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার তরফে বলা হয়েছিল, বাদুড় বা ওই জাতীয় প্রাণীর শরীরই করোনাভাইরাসের আধার। কিন্তু তারপর এ নিয়ে বিস্তর বিতর্ক শুরু হয়। তাই ফের একবার যাওয়ার পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে হু। এ প্রসঙ্গে মারিয়া ভ্যান জানিয়েছেন, ‘হু’- এর দল ওখানে পৌঁছলেই হবে না। গোটা বিষয়টি পুঙ্খানুপুঙ্খ ভাবে দেখতে চিনের সাহায্য দরকার। সেখানকার পরিকাঠামো ব্যবহার করার সুযোগও পেতে হবে। তার জন্য চিনের সঙ্গে কথা বলা হবে।’
অবশ্য চিনের বিদেশমন্ত্রক জানিয়েছে, এখনও কোনও প্রস্তাব তারা হু-এর কাছ থেকে পায়নি। তবে তারা ‘হু’-কে সম্পূর্ণ সাহায্য করবে বলে প্রতিশ্রুতি দিয়েছে। এমনকি তারা এই বিতর্কের একটা উপসংহারে পৌঁছানোর দাবিও তুলেছে।

Related Articles

Back to top button
Close