fbpx
গুরুত্বপূর্ণদেশহেডলাইন

পারদ নামছে রাজধানীর, পাল্লা দিয়ে সংক্রমণ ঊর্ধ্বমুখী দিল্লিতে

যুগশঙ্খ ডিজিটাল ডেস্ক: তাপমাত্রা পতনের ধারা অব্যাহত দিল্লিতে। পরপর তিনদিন দেশের রাজধানীতে পারদ ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াসের নীচে নামল। শনিবার সকালে দিল্লির তাপমাত্রা ছিল ৮.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াস। শুক্রবারের তুলনায় এক ডিগ্রি বেশি হলেও, এদিন ঠান্ডা ছিল হাড় কাঁপানো। গত ১৪ বছরের মধ্যে নভেম্বরে দিল্লিতে সবচেয়ে শীতলতম দিন ছিল শুক্রবার।

আবহবিদরা বলছেন, শৈত্যপ্রবাহের আগাম বার্তা দিচ্ছে তাপমাত্রার এই পতন। সেই সঙ্গে পাল্লা দিয়ে বাড়ছে দূষণ এবং কোভিড সংক্রমণ। সব মিলিয়ে, ত্রিমুখী ফলায় নাজেহাল রাজধানী।
সমভূমি এলাকায় সর্বনিম্ন তাপমাত্রা ১০ ডিগ্রি সেলসিয়াস অথবা তার নীচে চলে গেলে তখনই তাকে শৈত্যপ্রবাহ হিসেবে ঘোষণা করা হয়। গত তিনদিন ধরে তাপমাত্রার পতন দেখে আবহবিদরা আশঙ্কা করছেন শীঘ্রই শৈত্যপ্রবাহ শুরু হতে পারে দিল্লিতে। দিল্লির মৌসম ভবনের প্রধান কুলদীপ শ্রীবাস্তব সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে আগেই জানিয়েছিলেন, যদি শনিবারেও তাপমাত্রার পতন জারি থাকে, তাহলে শৈত্যপ্রবাহ হিসেবে ঘোষণা করা হবে। আপাতত সেই পথেই এগোচ্ছে দিল্লি।

নভেম্বরের মাঝামাঝি থেকেই তাপমাত্রার পারদ নামতে শুরু করে দিল্লিতে। স্বাভাবিকের থেকে ২–৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপমাত্রা নামতে শুরু করে। পিটিআই সূত্রে খবর, দিল্লিতে তাপমাত্রা পতনের সর্বকালের রেকর্ড ১৯৩৮ এর ২৮ নভেম্বর। সে বছরে তাপমাত্রা নেমেছিল ৩.৯ ডিগ্রি সেলসিয়াসে।

এটা ঘটনা, শুক্রবার মাঝরাত থেকে ভোরের মধ্যে রাজধানীতে দিনের সর্বনিম্ন তাপমাত্রা নেমেছিল ৭.৫ ডিগ্রি সেলসিয়াসে। নভেম্বরে ১৪ বছরের মধ্যে সব থেকে কম।

Related Articles

Back to top button
Close