fbpx
পশ্চিমবঙ্গহেডলাইন

ভাঙড়ে চোর সন্দেহে গণপিটুনিতে খুন মহিলা, গ্রেফতার ৪ 

ফিরোজ আহমেদ, ভাঙড়: বাড়ি থেকে চুরির অভিযোগে এক গৃহবধূকে পিটিয়ে খুন করার অভিযোগ উঠল ভাঙড়ে।মৃত বধূর নাম সুফিয়া বিবি(৪১)।গুরুতর জখম তার স্বামী।ঘটনায় উত্তপ্ত হয়ে ওঠে এলাকা। ঘটনার তদন্তে নেমে চার জন কে গ্রেফতার করেছে কাশীপুর থানার পুলিশ।
পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, বৃহস্পতিবার রাতে ভাঙড়ের কাশীপুর থানা এলাকার চিনেপুকুর গ্রামে গ‍্যাসের ব্যবসায়ী মহিবুল মোল্লার বাড়ি থেকে প্রায় দুই লক্ষ‍্য‍ টাকা চুরি যায়। অভিযোগ, সন্দেহ বসত মহিবুল মোল্লা দলবল নিয়ে পাশের পাড়ার আলি মোল্লার বাড়িতে চড়াও হয়। প্রত্যক্ষদর্শীদের দাবি, আট-দশ জন যুবক গিয়ে চিনেপুকুর লস্কর পাড়ার বাসিন্দা আলি মোল্লার বাড়ি যায়।অভিযোগ, আলি মোল্লা কে চোর সন্দেহে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে গিয়ে বেধড়ক মারধর করা হয়।এর পাশাপাশি তার স্ত্রী সুফিয়া বিবি কে তুলে নিয়ে গিয়ে বেধড়ক মারধর করে।
গণপিটুনিতে রক্তাক্ত অবস্থায় মাটিতে লুটিয়ে পড়েন সুফিয়া। স্থানীয়রা উদ্ধার করে কলকাতার আরজিকর হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়া হয়।কয়েক ঘন্টার মধ্যে ওই মহিলার মৃত্যু হয়।মৃত্যুর খবর এলাকায় চাউর হতেই স্থানীয় রা উত্তেজিত হয়ে পড়েন।গ্রামের আবাল-বৃদ্ধ-বনিতা দফায় দাফায় বিক্ষোভ দেখন এবং উত্তেজিত হয়ে পড়েন।দোষীদের উপযুক্ত শাস্তির দাবিতে সোচ্চার হন এলাকার মানুষ। পরিস্থিতি সামাল দিতে ঘটনাস্থলে ছুটে আসে কাশীপুর থানার পুলিশ বাহিনী।এলাকা উত্তপ্ত থাকায় পুলিশ পিকেট বসানো হয়।
পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, ঘটনায় অভিযোগ ভিত্তিতে তদন্তে নেমে রাত ভোর তল্লাশি চালিয়ে চার জন কে গ্রেফতার করা হয়েছে।ধৃতদের মধ্যে মূল অভিযুক্ত মহিবুল মোল্লা সহ আইজুল মোল্লা, গোলাম লস্কর এবং আবুল কালাম কে কাশীপুর থানার পুলিশ গ্রেফতার করেছে।ধৃতের মধ্যে তিন জনের চিনেপুকুর এবং এক জনের কাঁঁটা ডাঙ্গা গ্রামের বাসিন্দা বলে পুলিশ জানিয়েছে।
শনিবার বিকালে চিনেপুকুর গ্রামে মহিলার মৃতদেহ আসতেই মৃত দেহ নিয়ে বিক্ষোভে ফেটে পড়েন গ্রামবাসীরা। অভিযুক্তদের দৃষ্টান্ত মুলক শাস্তির দাবিতে সরব হন এলাকার মানুষজন।

Related Articles

Back to top button
Close